Ticker

6/recent/ticker-posts

Ads

চুল পড়া বন্ধ করার ঘরোয়া উপায়

চুল পড়া বন্ধ করার সঠিক ও ঘরোয়া উপায়:

চুল পড়া বন্ধ করার ঘরোয়া উপায়
চুল পড়া বন্ধ করার ঘরোয়া উপায়

চুল পড়ার সমস্যায় ভুগছেন? নিয়মিত ১০০টি বা কম চুল পড়ে যাওয়াকে স্বাভাবিক হিসেবেই ধরা হয়। তবে এর বেশি চুল(hair) পড়লেই বিপদ। ঘরোয়া ও প্রাকৃতিক কিছু উপায় অবলম্বন করে খুব সহজেই কমিয়ে ফেলতে পারেন চুল পড়ার সমস্যা।   

আজকে আমরা চুল পড়ার কারণ ও চুল পড়া বন্ধ করার ঘরোয়া উপায় সম্পর্কে বিস্তারিত জানব।

চুল পড়া :

৮-৮০ বছর বয়সের সকলের কমবেশি চুল পড়ার সমস্যায় ভুগছেন। দামী শ্যাম্পু, হেয়ার ওয়েল, ক্রীম কোনো কিছুতেই সমস্যার সমাধান হচ্ছে না। বর্তমান সময়ে চুল পড়া অনেক বড় সমস্যার কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে।

চুল পড়ার কারণ :

১। শরীরে পুষ্টির ঘাটতি হলে চুল পড়ে।

২। হরমোনের পরিবর্তনের চুল পড়ে।

৩। খাবারে প্রোটিন ও আয়রনের কারণে চুল পড়ে।

৪। ইনফেকশনের কারণে চুল পড়ে।

৫। পেটের সমস্যায় চুল পড়ে।

৬। টেনশনের জন্য চুল পড়ে। 

৭। অস্বাস্থ্যকর খাবার খেলে চুল পড়ে।

চুল পড়া বন্ধ করার ঘরোয়া উপায় :

১. মেথি

১/২ কাপ নারকেল তেলে ১ চা-চামচ মেথি দিয়ে ৫-১০ মিনিট ফুটিয়ে নিন। ফুটানো পানি ঠাণ্ডা হলে চুলের গোড়ায় ভালোভাবে ম্যাসাজ করুন। ১ ঘণ্টা অপেক্ষা করার পর মাইল্ড শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন।

২. পেঁয়াজের রস

চুল পড়া বন্ধ করতে পেঁয়াজের রস খুবই কার্যকরী। পেঁয়াজের রস চুলের গোড়ায় ঘষে ঘষে লাগান। ঝাঁঝালো গন্ধ দূর করতে চাইলে ২-৩ ফোঁটা এসেনশিয়াল অয়েল মিশিয়ে নিন। ৩০ মিনিট অপেক্ষা করে ধুয়ে ফেলুন ভেষজ শ্যাম্পু দিয়ে।

৩. অ্যালোভেরা জেল

চুলে সপ্তাহে ২দিন অ্যালোভেরা জেল লাগান। অ্যালোভেরার জেল চুলের আগা থেকে গোড়া পর্যন্ত লাগান। ৩০ মিনিট অপেক্ষা করার পর ধুয়ে ফেলুন শ্যাম্পু দিয়ে। ফলে চুল পড়া বন্ধ হবে পাশাপাশি ঝলমলে হবে চুল।

৪. তেল

কয়েক ধরণের তেল একসাথে মিশিয়ে ম্যাসাজ করুন আপনার চুলে। তবে মিশ্রিত তেলটি আগে গরম করে নেবেন সামান্য। তেলটি ম্যাসাজ শেষে গরম তোয়ালে দিয়ে জড়িয়ে নিবেন চুল। ২০ মিনিট পর তোয়ালে খুলে অপেক্ষা করুন আরও ১০ মিনিট। তারপর শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

৫. মেহেদি ও সরিষার তেল

২৫০ মি.লি সরিষার তেলে ৩০টি মেহেদি পাতা দিয়ে ভালোভাবে ফুটিয়ে নিন। ঠাণ্ডা হলে ম্যাসাজ করুন চুলের গোড়ায় গোড়ায়। ৩০ মিনিট অপেক্ষা করার পর ভেষজ শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে অন্তত ১দিন ব্যবহার করুন এই তেল। 

৬. অলিভ অয়েল, জিরা ও মধু

১/৪ কাপ অলিভ অয়েলে সাথে ১ চা-চামচ জিরা ভিজিয়ে রাখুন ৫-৬ ঘণ্টা। তারপর মিশ্রণটি ছেঁকে নিয়ে তেল আলাদা করে নিন। তেলের সাথে খানিকটা মধু মিশিয়ে চুলের গোড়ায় ভালোভাবে ম্যাসাজ করুন। ২০ মিনিট পর শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন। সপ্তাহে অন্তত ১ দিন ব্যবহার করলে কাজ হবে দ্রুতই।

৭. আলুর রস

আলু পিষে রস বের করে চুলের স্ক্যাল্পে ২০ মিনিট লাগিয়ে রেখে শ্যাম্পু করে নিতে পারেন। এছাড়াও ৩-৪ টা আলুর রস, ২ চা-চামচ মধু, ১টি ডিমের কুসুম মিশিয়ে একটি প্যাক বানিয়ে নিন।সপ্তাহে অন্তত ১ দিন প্যাকটি ২০ মিনিট লাগিয়ে রেখে শ্যাম্পু দিয়ে ধুয়ে নিন।ফলে চুল পড়ার সমস্যা দূর হবে।

৮. নিমপাতা

নিমপাতা নতুন চুল গজাতে সহায়তা করে ও চুল পড়া অনেকটাই রোধ করে। পরিমাণমতো নিমপাতা নারকেল তেলের সাথে ফুটিয়ে চুলের গোড়ায় লাগালে চুল কম পড়ে।

৯. গ্রিনটি

চুল পড়া রোধে গ্রিনটি ব্যবহার করতে পারেন। ২টি গ্রিনটি ব্যাগ নিয়ে ১ কাপ পানির মধ্যে ফুটিয়ে ঠাণ্ডা করে মাথায় ও চুলে লাগাবেন। এটি ৩০ মিনিট আপনার চুলে রেখে পরে ভালোভাবে ধুয়ে ফেলুন।

১০. মেহেদি

প্রাচীনকাল থেকে চুলের যত্নে মেহেদির ব্যবহার হয়ে আসতেছে। আপনি চুল পড়া কমাতে মেহেদি ব্যবহার করতে পারেন। মেহেদির পাতা পেস্ট করে চুলের গোড়ায় লাগলে চুল পড়া রোধ ও শক্তিশালী হবে।

আরও পড়ুন। নিমপাতার জাদুকরী উপকারিতা 

পাতলা চুল ঘন করার ৬টি কার্যকর উপায় 

মেথির উপকারিতা ও খাওয়ার নিয়ম 

Post a Comment

0 Comments